৬৩২ পৃষ্ঠা টাইপ হয়ে গেলেই রায়েরকপি পাবে বিএনপি- আনিসুল হক

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের রায়ের কপি ইচ্ছে করে দেরিতে দেয়া হচ্ছে বলে তার আইনজীবীদের দাবি সঠিক নয়। খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা মিথ্যা বলছেন। তিনি বলেন, ‘৬৩২ পৃষ্ঠার রায়ের কপি টাইপ করতে যুক্তিসঙ্গত যতটুকু সময় লাগে, ততটুকু সময়েই কপি পাবেন তারা। এর এক মিনিটও দেরি হবে না। এতে সরকার কোনো হস্তক্ষেপ করবে না।’

শুক্রবার আখাউড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ওবায়দুল হক অফাইয়ের মরদেহ দেখতে তার গ্রামের বাড়ি হীরাপুরে গেলে স্থানীয় সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে আইনমন্ত্রী এসব কথা বলেন। খবর: বাসস।

প্রসঙ্গত, জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় পাঁচ বছরের সাজা নিয়ে কারান্তরীণ বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। রায়ের দিনই (৮ ফেব্রুয়ারি) আপিল করার কথা জানিয়েছিলেন তার আইনজীবীরা। কিন্তু, আপিলের অন্যতম শর্ত রায়ের সার্টিফাইয়েড কপি পাওয়া, যা বিগত সাত দিনেও খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা পাননি।

বিএনপি নেতাদের অভিযোগ, খালেদা জিয়াকে দীর্ঘদিন কারাগারে রাখার পরিকল্পনাতেই সরকার জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলার রায়ের সার্টিফাইয়েড কপি সরবরাহ করতে সময় নিচ্ছে।

তারা বলেন, তারিখ ঘোষণার মাত্র ১৩ দিনেই ৬৩২ পৃষ্ঠার রায় লেখা সম্ভব হয়েছে। অথচ এক সপ্তাহ পার হলেও তা প্রিন্ট দিয়ে সরবরাহ করা হচ্ছে না।

সাংবাদিকদের অপর এক প্রশ্নের জবাবে আনিসুল হক বলেন, ‘খালেদা জিয়াকে আর কোনো মামলায় জন্য এরেস্ট (গ্রেফতার) দেখানো হয়নি।’

এর আগে তিনি আখাউড়া উপজেলা যুবলীগ আয়োজিত আনন্দ শোভাযাত্রায় অংশ নেন। যুবলীগের নতুন কমিটি গঠন উপলক্ষে এ শোভাযাত্রার আয়োজন করা হয়।

আখাউড়া পৌরসভার মেয়র তাকজিল খলিফা কাজল, জেলা পরিষদ সদস্য আবুল কাসেম ভূঁইয়া, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক মো. সেলিম ভূঁইয়া, পৌর আওয়ামী লীগ সভাপতি অ্যাডভোকেট আবদুল্লাহ ভূঁইয়া বাদল প্রমুখ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error

নিউজ টি শেয়ার করুন :)

Instagram
LinkedIn
Share
Follow by Email