হাজীদের পরিবহনের জন্য চট্টগ্রামে হজ্ব ফ্লাইট বৃদ্ধির প্রচেষ্টা চালাবেন মেয়র

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ এসোসিয়েশন অব ট্রাভেল এজেন্টস অব বাংলাদেশ (আটাব) ও হজ্ব এজেন্সিস এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (হাব) চট্টগ্রাম জোনের নেতৃত্বে আজ দুপুরে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দীনের সাথে তাঁর দপ্তরে এক সৌজন্য সাক্ষাত করেন। সাক্ষাতকালে আটাব ও হাব নেতৃবৃন্দ সিটি মেয়রকে অবহিত করেন যে, বিগত সনে চট্টগ্রাম থেকে জেদ্দায় ১৭টি এবং মদিনায় ২টিসহ ১৯টি সরাসরি ফ্লাইট চালু ছিল। কিন্তু ফ্লাইট সংখ্যা কমিয়ে দিয়ে এই বছর জেদ্দায় ৫টি এবং মদিনায় ৪টি ফ্লাইটের সিডিউল রাখা হয়েছে। কিন্তু এই ৯টিসহ নিয়মিত ফ্লাইট দিয়ে ৯৬০০ জন হজ্বযাত্রী পরিবহন করা অসম্ভব। এতে হজ্বযাত্রীরা ভোগান্তিতে পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। নেতৃবৃন্দ চট্টগ্রামের হজ্ব যাত্রীদের পরিবহন সংকট নিরসনে আগামী ১০-১৫ আগস্টের মধ্যে নূন্যতম আরো ৫টি সরাসরি জেদ্দাগামী ফ্লাইট বৃদ্ধির জন্য সিটি মেয়রের সহযোগিতা কামনা করেন।

সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন আটাব নেতৃবৃন্দের উদ্দেশ্যে বলেন, বার আউলিয়ার পুণ্যভূমি এই চট্টগ্রাম। এই চট্টগ্রাম থেকে প্রতি বছর হাজার হাজার ধর্মপ্রাণ মানুষ পবিত্র হজ্বব্রত পালনের জন্য সৌদি আরবে গমন করেন। কিন্তু প্রতিবারই নানামুখী প্রতিবন্ধকতা এবং ফ্লাইট সংকটের কারণে হজ্ব পালন করতে গিয়ে এ অ লের মানুষ ভোগান্তির স্বীকার হয়ে আসছেন। তিনি চট্টগ্রাম বিমান বন্দর থেকে জেদ্দা এবং মদিনায় ফ্লাইট কমিয়ে দেয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

এ ব্যাপারে মেয়র আরো বলেন, হাজীদের জন্য চট্টগ্রাম থেকে জেদ্দা এবং মদিনায় সরাসরি ফ্লাইট সিডিউল বৃদ্ধি করা না হলে ধর্মপ্রাণ মুসলমান সমাজের মধ্যে অসন্তোষ সৃষ্টি হবে। একজন জনপ্রতিনিধি হিসেবে এ অ লের মানুষের ভাল-মন্দ দেখার দায়িত্ব আমার উপর। হজ্ব যাত্রীদের জন্য সরকার বাংলাদেশ বিমানের পাশাপাশি সিডিউলে সৌদি বিমানকেও সংয্ক্তু করেছে। সরকারের এই মহতী উদ্যোগ নস্যাৎ করার জন্য একটি চট্টগ্রাম বিদ্বেষী মহল নানামুখী ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে। এর ফলশ্রুতিতে চাহিদা অনুযায়ী যেখানে চট্টগ্রামের হাজীদের পরিবহনের জন্য হজ্ব ফ্লাইট বৃদ্ধি করার কথা। সেখানে ফ্লাইট সংকট সৃষ্টি করে চট্টগ্রামের ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের উপর হয়রানি এবং ভোগান্তি সৃষ্টি করা হচ্ছে বলে মেয়র উল্লেখ করেন। এ অচলাবস্থা দূরীকরণে তিনি আল্লাহর ঘরের মেহমান হজ্ব যাত্রীদের ভোগান্তি লাঘবে চট্টগ্রাম থেকে জেদ্দাগামী সিডিউলে নূন্যতম আরো ৫টি সরাসরি ফ্লাইট বরাদ্দের জন্য সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ে প্রচেষ্টা চালাবেন বলে আটাব ও হাব নেতৃবৃন্দদের প্রতিশ্রুতি প্রদান করেন। এসময় চসিক কাউন্সিলর হাসান মুরাদ বিপ্লব, আটাব চট্টগ্রাম জোনের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আবু জাফর,হাব চট্টগ্রাম জোনের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ শাহ আলম,আটাব চট্টগ্রাম জোনের সচিব এইচ এম মুজিবুল হক শুক্কুর,হাব চট্টগ্রাম জোনের সচিব আলহাজ্ব মাহমুদুল হক পেয়ারু,আটাব ইভিপি আলহাজ্ব এমদাদুল্লাহ,হাব চট্টগ্রাম জোনের ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল করিম, বিশিষ্ট সমাজসেবক মোরশেদুল আলম ও আশফাক আহমদ উপস্থিত ছিলেন।

মুকিম // শনিবার , ১৪ জুলাই ২০১৮, ৩০ আষাঢ় ১৪২৫

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error

নিউজ টি শেয়ার করুন :)

Instagram
LinkedIn
Share
Follow by Email