শ্রমিক কর্মস্থলে মারা গেলে তার পরিবার ক্ষতিপূরণ পাবে ২ লাখ টাকা : শ্রমপ্রতিমন্ত্রী

কর্মস্থলে শ্রমিক নিহত হলে পরিবারকে ২ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেয়া হবে। নিহতের সন্তান ডাক্তারি কিংবা টেক্সটাইলে পড়লে দেয়া হবে ৩ লাখ টাকা এবং কোনো শ্রমিক দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত হলে দেয়া হবে ১ লাখ টাকা।

মঙ্গলবার(১লা মে) সকালে মে দিবস উপলক্ষে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় আয়োজিত শোভাযাত্রা শেষে প্রতিমন্ত্রী মুজিবুল হক চুন্নু এসব কথা বলেন। পল্টনের দৈনিক বাংলার মোড় থেকে শোভাযাত্রা বের হয়ে জাতীয় প্রেস ক্লাবে গিয়ে শেষ হয়।

এসময় নৌ-পরিবহনমন্ত্রী শাহজাহান খান, শ্রম মন্ত্রণালয়ের সচিব আফরোজা খানসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

শ্রম প্রতিমন্ত্রী মুজিবুল হক চুন্নু বলেন, অনেক প্রতিষ্ঠান এখনও শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরি বাস্তবায়ন করেনি। এ কারণে পোশাক খাতে কমিটি গঠন করে দেয়া হয়েছে। যারা কর্মস্থলে নিহত ও আহত হবেন তাদের ক্ষতিপূরণ দেয়া হবে।

নৌ-পরিবহনমন্ত্রী বলেন, বর্তমান সরকার শ্রমিকদের সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধিতে সচেষ্ট আছে। একে অন্যকে প্রতিপক্ষ না ভেবে মালিক-শ্রমিকদের একসাথে কাজ করতে হবে। আর যে ক্ষতিপূরণে ঘোষণা দেয়া হয়েছে তা বাস্তবায়ন চায় শ্রমিকরা।

বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশে পালন করা হচ্ছে মে দিবস। এবারে মে দিবসের প্রতিপাদ্য হচ্ছে ‘শ্রমিক-মালিক ভাই ভাই, সোনার বাংলা গড়তে চাই।’

দিবসটি উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদ ও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ পৃথক বাণী দিয়েছেন।

মে দিবস উপলক্ষে বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক, পেশাজীবী এবং সাংস্কৃতিক সংগঠন বিভিন্ন কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। এ সব কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে শোভাযাত্রা, আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error

নিউজ টি শেয়ার করুন :)

Instagram
LinkedIn
Share
Follow by Email