শাহবাগে কোটা সংস্কারের দাবিতে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ

রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে কোটা সংস্কারের দাবিতে পদযাত্রা কর্মসূচি পালন করছেন চাকরিবঞ্চিত শিক্ষার্থীরা।রোববার(৮ এপ্রিল) দুপুর তিনটার দিকে শাহবাগে সড়ক অবরোধ করে ৫ দফা দাবির পক্ষে স্লোগান দেন আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা। এতে শাহবাগসহ আশপাশের এলাকায় যানজটের সৃষ্টি হয়।

রোববার(৮ এপ্রিল) দেশের সকল পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে চাকরি প্রত্যাশী শিক্ষার্থীরা পদযাত্রা কর্মসূচি পালন করছেন। দুপুরে রাজধানীর বিভিন্ন স্থান থেকে ছাত্রছাত্রীদের পদচারণায় মুখর হয়ে ওঠে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় লাইব্রেরি চত্বর। রাজধানীর বিভিন্ন স্থান থেকে কোটা আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা শাহবাগে এসে জড়ো হন। এসময় তারা শাহবাগ মোড়ে অবস্থান নিয়ে তাদের ৫ দফা দাবির পক্ষে স্লোগান দেন।

কোটা সংস্কারের দাবিতে পূর্বনির্ধারিত আজকের পদযাত্রা কর্মসূচি ব্যাপক শোডাউনে রূপ নিয়েছে। কোটার ফাঁকা পদ পূরণে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সাম্প্রতিক ব্যাখ্যায় ক্ষুব্ধ শিক্ষর্থীরা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চলছে প্রতিবাদের ঝড়।

পদযাত্রা কর্মসূচি নিয়ে পরিষদের যুগ্ম-আহ্বায়ক মুহাম্মদ রাশেদ খান বলেন, আজকের কর্মসূচি হবে বাংলার ইতিহাসে ছাত্রদের অধিকার আদায়ের জন্য সবচেয়ে বড় ছাত্র আন্দোলন। রাজপথে নিজের অধিকার আদায়ে নামতে কেউ ভয় পান? বুকের তাজা রক্তে রাজপথ রঞ্জিত হলেও বলবো-‘কোটা সংস্কার চাই’।

সরকারি চাকরিতে কোটা পদ্ধতি সংস্কারের দাবিতে আজ রোববার থেকে সারাদেশে ‘গণপদযাত্রা’কর্মসূচি পালন করছেন আন্দোলনকারীরা।

আন্দোলনকারীদের পাঁচ দফা দাবি হচ্ছে- সরকারি নিয়োগে কোটার পরিমাণ ৫৬ শতাংশ থেকে কমিয়ে ১০ শতাংশ করা, কোটার যোগ্য প্রার্থী না পেলে শূন্যপদে মেধায় নিয়োগ, কোটায় কোনো ধরনের বিশেষ নিয়োগ পরীক্ষা না নেয়া, সরকারি চাকরির ক্ষেত্রে অভিন্ন বয়সসীমা, নিয়োগপরীক্ষায় একাধিকবার কোটার সুবিধা ব্যবহার না করা।

কোটা পদ্ধতির সংস্কারের দাবিতে বেশ কিছুদিন ধরে আন্দোলন চলছে। ওই আন্দোলনের অংশ হিসেবে ১৪ মার্চ ৫ দফা দাবি নিয়ে স্মারকলিপি দিতে সচিবালয় অভিমুখে যেতে চাইলে পুলিশি ধরপাকড় ও আটকের শিকার হন তিন আন্দোলনকারী। এরপর আরও বেশ কয়েকটি কর্মসূচি পালন করেন আন্দোলনকারীরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error

নিউজ টি শেয়ার করুন :)

Instagram
LinkedIn
Share
Follow by Email