ময়মনসিংহে পরকীয়া সন্দেহে গৃহবধূকে প্রতিবেশীর নির্যাতন

ময়মনসিংহের গৌরীপুরে পরকীয়া সন্দেহে এক গৃহবধূকে দিনভর মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে পাশের বাড়ির অপর দুই গৃহবধূর বিরুদ্ধে। ওই গৃহবধূকে গুরুতর আহত অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় দুই অভিযুক্ত গৃহবধূ টুকুনি বেগম এবং হাবিলা আক্তারকে আটক করা হয়েছে।

শনিবার গৌরীপুর উপজেলার ইসলামাবাদ গ্রামে এই ঘটনাটি ঘটে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এস এ নেওয়াজী জানান, পরকীয়ার অপবাদ দিয়ে গতকাল শনিবার দিনভর গৌরীপুর উপজেলার ইসলামাবাদ গ্রামের এক গৃহবধূকে (৩০) নির্যাতন করা হয়। চুল কেটে, নাকে-মুখে কালি দিয়ে, লাঠি দিয়ে রাস্তার উপর প্রকাশ্যে ওই গৃহবধূকে মারধর করে একই গ্রামের টুকুনি বেগম এবং হাবিলা আক্তার নামে দুই নারী।

তিনি আরও জানান, রাতে নির্যাতনের শিকার ওই গৃহবধূকে গুরুতর আহত অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে রোববার সকালে অভিযুক্ত ওই দুই নারীকে আটক করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে মামলা করা হবে। স্ত্রীকে এমন অমানবিক নির্যাতনের বিচার চেয়েছেন তার স্বামী।

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চিকিৎসক জহিরুল ইসলাম বলেন, নির্যাতিতার শরীরে একাধিক আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তার সুস্থ হতে সময় লাগবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error

নিউজ টি শেয়ার করুন :)

Instagram
LinkedIn
Share
Follow by Email