নগরীতে যৌতুকের দাবীতে নববধূকে নির্যাতনের অভিযোগে স্বামী গ্রেফতার

নগরীর ইপিজিডে যৌতুকের দাবীতে নববধূর উপর পৈশাচিক নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে স্বামী শাহ আলমের বিরুদ্ধে। এঘটনায় অভিযুক্ত শাহ আলমকে গ্রেফতার করেছে ইপিজেড থানা পুলিশ।
জানা যায়, ৭ মাস আগে ভালোবেসে পরিবারের অমতে স্বামী শাহ আলমের হাত ধরে পালিয়েছিল এই গৃহবধূ। যা কাল হয়ে দাড়িয়েছিল এ নববধূর জন্য। যৌতুকের দাবীতে ভালোবাসার এই প্রিয় মানুষটি তার প্রতি হতে থাকে দিন দিন হিংস্র, আর এই হিংস্রতার কবলে শেষ পর্যন্ত কথা বলার শক্তিটুকুও হারাতে বসেছে এই নববধূ। স্বামী শাহ আলমের পায়ের লাথিতে ভেঙ্গে যায় তার মুখের দুপাশের চোয়াল।
এব্যাপারে নির্যাতনের শিকার নববধূর ভাই জানান,আমাদের অমতে আমাদের বোন বিয়ে করেছিল। আমাদের বোনকে বিয়ের পর থেকে যৌতুকের টাকার জন্য চাপ দিতে থাকে তার স্বামী শাহ আলম। আমার বোন তা দিতে অস্বীকার করলে তার উপর পৈশাচিক নির্যাতন চালায় সে।
এব্যাপারে ইপিজেড থানার উপ-পুলিশ পরিদর্শক মোঃ আশরাফুল ইসলাম সিপ্লাসকে জানান, অভিযুক্ত শাহ আলমকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error

নিউজ টি শেয়ার করুন :)

Instagram
LinkedIn
Share
Follow by Email