এবার অবসরে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে নিলেন অর্থমন্ত্রী

চলতি বছরের ডিসেম্বরেই অবসরে যাচ্ছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। দুপুরে স্থানীয় একটি হোটেলে আয়োজিত অগ্রণী ব্যাংকের বার্ষিক ব্যবসা সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্যের সময় তিনি এ কথা জানান।

অর্থমন্ত্রী বলেন, জীবনে একটি সময় আসে যখন অবসর নেওয়া উচিত। নির্দিষ্ট সময়ের পর সবারই অবসরে যাওয়া উচিত।তবে রাজনীতি থেকে অবসরে যাবেন কি না সে বিষয়ে পরিষ্কার করে কিছু বলেননি তিনি।

মুহিত বলেন, বহুদিন এক জায়গায় থাকলে পচন আসে, আমি এবার সত্যিকার ভাবেই অবসরে যাব।

অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী আরও বলেন, দেশের ব্যাংকের সংখ্যা অনেক বেড়েছে। কিন্তু শাখার সংখ্যা সেভাবে বাড়েনি। এজন্য ব্যাংকের শাখা আরও বাড়াতে হবে। ঋণখেলাপি বিষয়ে ব্যাংকারদের পরামর্শ দেন অর্থমন্ত্রী।

তিনি বলেন, ব্যাংকারদের আমি দুটি পরামর্শ দেব। প্রথমত- ঋণের প্রস্তাব এলে সেটি যথাযথভাবে পর্যালোচনা করবেন। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে বিশেষজ্ঞদের দিয়ে ঋণ প্রস্তাব মূল্যায়ন করলে খেলাপি হবে না। এজন্য প্রত্যেক ব্যাংকে বিশেষজ্ঞ সৃষ্টি করা যেতে পারে। দ্বিতীয়ত- ব্যাংকের জন্য কেওয়াইসি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। যে ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানকে সেবা দিচ্ছেন, সেটিকে সঠিকভাবে জানতে হবে।

তিনি আরও বলেন, ব্যাংকে নগদ টাকার সংকট নেই, অযথা ভীতি ছড়ানো হচ্ছে।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন অগ্রণী ব্যাংকের চেয়ারম্যান ড. জায়েদ বখত। উপস্থিত ছিলেন অর্থ প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান, বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির, ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সিনিয়র সচিব ইউনুসুর রহমান, ব্যাংকের এমডি শাসমুল ইসলামসহ ব্যাংকটির পরিচালনা পর্ষদের অন্য কর্মকর্তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error

নিউজ টি শেয়ার করুন :)

Instagram
LinkedIn
Share
Follow by Email